মানবিক উদ্যোগে শেখ রাসেল ফাউন্ডেশন ও কালের কণ্ঠ শুভসংঘ

0

করোনা মহামারির মধ্যে দুঃস্থ ও মেহনতি মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে শেখ রাসেল ফাউন্ডেশন ও কালের কণ্ঠ শুভসংঘ।

আজ শুক্রবার কুমিল্লার দেবীদ্বারে শেখ রাসেল ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে বিধবা নারীদের এক মাসের খাদ্য সামগ্রী ও বগুড়ার সোনাতলা উপজেলার সোনাতলা মডেল হাই স্কুল অ্যান্ড কলেজ মাঠে দুঃস্থ ও মেহনতি মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়।

কুমিল্লার দেবীদ্বারে ৫০ জন বিধবা নারীকে এক মাসের খাদ্যসামগ্রী উপহার দেয় শেখ রাসেল ফাউন্ডেশন।

তাদেরকে এক বস্তা চাল, তিন কেজি পেঁয়াজ, দুই লিটার তেল, পাঁচ কেজি আলু, দুই কেজি ডাল, এক কেজি চিনি, দুই প্যাকেট সেমাই এবং যাতায়ত খরচের ২০০ টাকাসহ একমাসের পরিপূর্ণ খাদ্য উপহার বিতরণ করা হয়।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে কুমিল্লা (দক্ষিণ) জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি আলহাজ হুমায়ুন কবির বলেন, করোনা মহামারিতে বিশ্ব আজ আতঙ্কিত, আমরাও বিপর্যস্ত। এ অবস্থায় আমাদের মনোবল, ধৈর্য নিয়ে করোনা মোকাবেলা করতে হবে। মানুষ ও মানবতার পাশে থাকতে হবে। এমনই একটি দায়িত্ব পালন করছে, আমেরিকা প্রবাসী ডা. ফেরদৌস খন্দকার। তার অর্থায়নে এ খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হয়।

বরকাতা ইউনিয়নের ফাগুন্ডা গ্রামের শোভারানী চক্রবর্তী খাদ্য সহায়তা পেয়ে বলেন, ২২ বছর পূর্বে স্বামী মারা গেছেন। স্বামীর মৃত্যুর পর বহু কষ্টে জীবীকা নির্বাহ করে আসছি। খাদ্য উপহার সামগ্রী পেয়ে কতটা উপকৃত হয়েছি, তা বুঝাতে পারবো না।

tan manobik

অন্যদিকে বগুড়া জেলার সোনাতলা উপজেলার সোনাতলা মডেল হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ মাঠে স্বাস্থ্যবিধি মেনে বসুন্ধরা গ্রুপের সহায়তায় ৩০০ অসহায় ও মেহনতি পরিবারের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেছে কালের কণ্ঠ শুভসংঘ।

বসুন্ধরা গ্রুপের খাদ্যসামগ্রী পেয়ে দুললি বেগম বলেন, ‘হামার ১০ বছর হচে স্বামী মারা গেছো। এহন কেউ খোঁজ খবর লয় না। ছোল ট্যাকা দেয় না। একাই থাকি। আগে কামকাজ করবার পারতাম এহন পারিচ্চি না। মাইমষেরতে চাইয়া-চিন্তা (ভিক্ষা করে) খাই। তোমকেরা হামাক দুইটা ডাইল ভাত খাবার দিচ্ছো। তোমকেরা আরও বড় হও।’

খাদ্যসামগ্রী বিতরণ কার্যক্রমে উপস্থিত হয়ে সোনাতলা উপজেলা চেয়ারম্যান মিনহাদুজ্জামান লিটন বলেন, করোনায় লকডাউনের মধ্যে বগুড়া জেলাসহ সারাদেশে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে কালের কণ্ঠ শুভসংঘ ও বসুন্ধরা গ্রুপ। আমি তাই সোনাতলা উপজেলার পক্ষ থেকে বসুন্ধরা গ্রুপ ও শুভসংঘের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাই। যারা আজকে খাদ্যসামগ্রী পেয়েছেন আপনারা তাদের জন্য দোয়া করবেন।

ডেস্ক রিপোর্ট, উদ্যোক্তা বার্তা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here