স্বামীর সহযোগিতায় অর্ধাঙ্গীর উদ্যোক্তা জীবনের পথচলা শুরু

0
উদ্যোক্তা শেখ শারমিন নাহার

উদ্যোক্তা শেখ শারমিন নাহার নারায়ণগঞ্জ কলেজ থেকে বিবিএ শেষ করেছেন। জন্মস্থান ঢাকার ডেমরায় এবং বেড়ে উঠা সেখানেই। ছোট বেলায় ইচ্ছা ছিলো নিজে কিছু একটা করবেন। বিয়ের পর স্বামীকে তার ইচ্ছার কথা জানাতেই পূর্ণ সহযোগিতা পান তার কাছ থেকে। মূলত স্বামীর হাত ধরেই উদ্যোক্তা জীবনে পা বাড়ান শেখ শারমিন নাহার। উদ্যোক্তার স্বামী একজন ব্যবসায়ী।

2 5

২০১৯ সালে মাত্র তিন হাজার টাকা দিয়ে হ্যামক (কাপড়ের তৈরী দোলনা) নিয়ে যাত্রা শুরু করেন। বর্তমানে বেত এবং ফাইবারের ইউনিক সব রকমের ফার্নিচার, সূতার দোলনা, হাতের তৈরী গহনা, শাড়ী, গিফট বক্স নিয়ে কাজ করছেন উদ্যোক্তা শেখ শারমিন৷

3 4

উদ্যোক্তার প্রতিষ্ঠান টিবিএস এ রয়েছে ৮ জন কর্মী ও ছোট ২ টা ফ্যাক্টরী যার একটিতে ফার্নিচার এবং অপরটিতে সূতার দোলনার কাজ চলে। ‘টিবিএস বাজার’ নামক অনলাইন প্লাটফর্মের মাধ্যমে উদ্যোক্তা তার পণ্যের প্রচার এবং প্রসারে কাজ করে যাচ্ছেন।
এখন পর্যন্ত প্রায় ৩৬ টা জেলায় উদ্যোক্তা শেখ শারমিন নাহারের বিভিন্ন আসবাবপত্র পৌঁছে গেছে। প্রতি মাসে প্রায় এক লাখ টাকার উপরে বিক্রি করে থাকেন।
ফাইবারের সোফা এবং সূতার দোলনার চাহিদা সব থেকে বেশি। ফাইবারের সোফা ২২০০০ থেকে শুরু ৫০০০০ পর্যন্ত। সূতার দোলনা ৫৫০০ থেকে শুরু।

4 2

“স্বপ্ন ছিলো দেশের প্রত্যন্ত গ্রামের মহিলাদের নিয়ে কাজ করার।পুরাতন ডিজাইনে নতুনত্ব আনা – সেই সুবাদেই আমার উদ্যোগ গ্রহন করা এবং হাতের নিখুঁত কাজ নিয়ে এগিয়ে যাওয়া” – এমনটাই বলছিলেন উদ্যোক্তা শেখ শারমিন।
তিনি আরো বলেন, “এই উদ্যোগের মাধ্যমে আমার শ্রেষ্ঠ অর্জন, আমি অনেক পরিবারের হাসির কারন হতে পেরেছি। তাই আমার ইচ্ছা,গ্রামের মহিলাদের নিয়ে আরো কাজ করা এবং তাদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা।শহরের মেয়েরা কোনো না কোনো কিছু করেই কিন্তু গ্রামের মহিলাদের কাছে সুযোগ কম থাকে তাদের কাছে সেই সুযোগ পৌছে দিতে চাই “

সেতু ইসরাত
উদ্যোক্তাবার্তা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here